হিলিতে হাসপাতালের বাথরুমে গলায় ফাঁস দিয়ে এক নারীর মৃত্যু

গোলাম রব্বানী হিলি ঃ

দিনাজপুরের হাকিমপুর( হিলি)   উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সবার অগোচরে বাথরুমে গলায় ফাঁস দিয়ে সজনী আক্তার (৪০) নামের এক নারী আত্মহত্যা করেছেন।

ওই নারী কুষ্টিয়া জেলার মাঝপাড়া গ্রামের আব্বাস আলীর স্ত্রী বলে হাকিমপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা তৌহিদ আল হাসান এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

বুধবার সকাল ৭টায় দিনাজপুরের হাকিমপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মহিলা ওয়ার্ডের বাথরুমে এ আত্মহত্যার ঘটনা ঘটে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা তৌহিদ আল হাসান জানান, গত সোমবার দুপুর ১টায় হাকিমপুর ডিগ্রি কলেজ মাঠে ওই নারীকে অজ্ঞান অবস্থায় পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা ইউএনওকে খবর দেন। পরে ইউএনও‘র নির্দেশে ওই নারীকে উদ্ধার করে স্থানীয় এ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করানো হয়। জ্ঞান ফেরার পর ওই নারী স্বীকার করেন যে, তিনি জন্য হারপিক পান করেছিলেন। স্বাস্থ্য কর্মকর্তা আরো জানান, চিকিৎসা চলাকালীন বুধবার সকালে সবার অগোচরে ওই নারী বাথরুমে ভেন্টিলেটরের গ্রিলের সাথে দড়ি ঝুলিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

হাকিমপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রাজ্জাক আকন্দ জানান, উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তার মুঠোফোনের মাধ্যমে ওই নারীর আত্মহত্যার খবর জানতে পারি। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে এবং লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজে পাঠানো হবে।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের অপশনে ক্লিক করুন

More News Of This Category